Tuesday, October 4, 2022
spot_imgspot_img

সফলতা অর্জনের জন্য যেভাবে অলসতা কে দূর করবেন

এমন ধরনের সিচুয়েশন আপনার সামনে কখনো না কখনো এসেছেই যে, আপনি জানেন আপনাকে পড়তে বসতে হবে অথবা কোনো কাজ করতে হবে, কিন্তু তবুও আপনার সেই কাজটি করতে মন চায়না। এর বড় কারন হলো অলসতা। অলসতা যেন আপনাকে বড় কোনো একটা দড়ি দিয়ে বেধে রেখেছে আর আপনার এমন অবস্থাতেই থাকতে ভালো লাগছে।


আপনাদের সবার লাইফের তো কোনো না কোনো একটা গোল রয়েছে। আপনারা অনেকেই ভাবেন যে আমার এমন কোনো কাজ করতে হবে যাতে আমি সমাজে বড় হই, লোকজন আমাকে চেনে, সম্নান করে শ্রদ্ধা করে। তো এসব কিছু করার জন্য আপনার প্লান এর অভাব নেই আপনার কাছে। কিন্তু এর মধ্যে একটি বিষয় ছাড়া পড়ছে যা হলো মোটিভেশন। আপনি অনেক কিছু করতে পারবেন এটা আপনি ভালো করেই জানেন কিন্তু আপনার মধ্যে এনার্জির মাত্রা কম রয়েছে। 

আসলে এখানে আপনাকে আপনার ব্রেইন এর নিউরন এর প্রসেস বুঝতে হবে। যে কাজটি কঠিন সেই কাজ আমাদের ব্রেইন সহজে করতে চায় না। আর এই কারনের জন্যই আমাদের ব্রেইন সব সময় সহজ কাজ করতে চায়। এটা কোনো চিন্তার বিষয় না। আপনার ব্রেইন এমন ভাবেই তৈরী যেখানে সে কঠিন কাজ কে সহজে করতে চাইবে না। 

তবে আপনি যদি এমন কিছু করতে চান যা আজ পযন্ত কেউ করেনি, আপনি যদি রিস্ক নিতে চান, আপনার ইচ্ছা যদি সবাইকে পেছনে ফেলে সবার আগে এগিয়ে যাওয়ার থাকে, তাহলে আপনাকে পরিবর্তন আনতে হবে নিজের মধ্যে। এমন কাজ গুলোই আপনাকে করতে হবে যা আপনাকে কঠিন বলে মনে হয়। 

পরিবর্তন কিভাবে আনবেন?

সোশ্যাল মিডিয়ার কম ব্যাবহার যা হলো প্রথম ধাপ-


আমরা অনেকেই প্রতিদিন ঘন্টার পর ঘন্টা সোশ্যাল মিডিয়া ব্যাবহার করি। আর জনপ্রিয় সোশ্যাল মিডিয়া গুলো যেমনঃ ফেসবুক (Facebook), ইন্সটাগ্রাম (Instagram), টুইটার (Twitter), লিংকডিন (LinkedIN), মেসেঞ্জার (Messenger) এসব এমন ভাবে তৈরী করা হয়েছে যে এরা আপনাকে আপনার সবটুকু সময় নিজেদের অ্যাপ এর মধ্যে স্ক্রল করতে বাধ্য করায়। এজন্য,

এদিকে বিষেশ ভাবে খেয়াল রাখতে হবে যেন, সোশ্যাল মিডিয়া; আপনাকে ব্যাবহার না করে। সোশ্যাল মিডিয়াতে স্ক্রল না করে এমন অভিনব কিছু করুন যা আপনার ব্রেইনে নতুন গোল সেট করবে। 

কখনো ভেবে দেখেছেন কি? আপনি যদি কোনো মোটিভেশনাল কিছু দেখেন তাহলে আপনার ব্রেইনে এক প্রকারের গোল সেট হয়ে যায়। এবং তার বেশ কিছুদিন পর  যা হতে পারে দুই-তিন দিন অথবা দুই-তিন ঘণ্টা পর আবার আমাদের ব্রেইন থেকে সেই কাজ করার, সেই গোল অর্জন করার ইচ্ছা চলে যায়।

এটা কেনো হয়-?

এর সবথেকে বড় কারন হলো অলসতা। তাহলে অলসতা দূর করতেই হবে নাহলে আপনি সাক্সেস হতে পারবেন না। এখন অলসতা দূর করার যেসব টিপস দেয়া হবে তা আপনাকে বুঝতে হবে এবং মেনে চলার চেষ্টা করতে হবে। 

ধরেন আপনি কিছু জিবনে পেতে চান। এবং যেটা পেতে চান তার গোল সেট করুন। তবে শুধু সেট করলেই নয়, আমি এই জিনিসকে করেই ছাড়বো এমন মন-মানসিকতা তৈরী করুন। এবার আপনি দেখবেন অসলতা আপনাকে আর বেধে রাখবে না। ভবিষ্যতে কি করবেন এইটা কে মাথায় রেখে শুধুমাত্র এক পা আগান। আপনার কাছে সব কিছু সহজ লাগবে।

এই ক্ষেত্রে 5 Minute Rules খুব ভালোভাবে কাজ করে।

5 Minute Rules ফলো করুন-


৫ মিনিট রুল হলো এমন একটি উপায় যা আপনার কাজের সময় কে প্রতিদিন ৫ মিনিট করে বাড়িয়ে দেয়। ধরুন আপনি প্রতিদিন ১ঘন্টা করে পড়েন অথবা কোনো কাজ করেন।  তাহলে আপনাকে আপনাকে এই ১ ঘন্টার সাথে 5 Minute যোগ করতে হবে। এভাবে আপনি যদি চলতে থাকেন তাহলে ১ মাস পর আপনি দেখবেন আপনার সেই কাজের সাথে আরো ১৫০ মিনিট বা ২ ঘন্টা ৩০ মিনিট যুক্ত হয়ে গেছে।

অলসতা কে দূর করতে গেলে আপনার কোনো কাজকে একবারে নয়, ধীরে ধীরে অভ্যাস এ পরিনত করতে হবে। এই আর্টিকেল পড়েও আপনার অলসতা দূর হবেনা যদি আপনি আপনি মন থেকে এটিকে দূর করার ইচ্ছা না আনেন। 

আকর্ষনীয় কাজ গুলোকে লিমিটে করুন-

আপনাকে সেই সমস্ত জিনিশ গুলি থেকে দূরে থাকতে হবে যেগুলো আপনাকে একশন নিতে বাধা দিচ্ছে। বেশি টিভি দেখা, বেশি গেমস খেলা, বেশি বন্ধুদের সাথে আড্ডা, বেশি ইন্টারনেট চালানো। এগুলো হলো সেইসব আকর্ষনিয় জিনিশ যা আপনাকে গুরুত্বপুর্ন কাজ করতে বাধা দেয়। এইজন্য এগুলো কে বাদ দিন। একেবারে বাদ দিতে না পারলে লিমিটে করুন। 

নিজের ইচ্ছাকে বড় রাখুন-

নিজের ইচ্ছাকে সবসময় বড় রাখুন। ইচ্ছা এমন একটি জিনিস যা আমাদের সকলের থেকে আলাদা করে। ইচ্ছা শক্তির আলাদা এক ক্ষমতা রয়েছে। এটি আপনাকে বিভিন্ন ভাবে সাযাহ্য করে। মনে করেন আপনি Good Life ইঞ্জয় করছেন। যদি আপনি ভাবেন যে এটুকুতেই আমি সমাবদ্ধ তাহলে চলবে না। আপনার ইচ্ছা বড় হওয়া প্রযোজন Good Life এর উপরে যে Great Life আছে এটী দেখার জন্য।

খেয়াল করলে দেখা যায়, আমাদের সমাজে মধ্যবিত্ত মানুষের সংখ্যা অধিক পরিমানে আছে। যেখানে ধনী কিম্বা গরীবের সংখ্যা কম। তবে আপনাকে যদি প্রশ্ন করা হয় যে, এদের মধ্যে কে কষ্টে রয়েছে আপনি গরীবদের দিকে দেখাবেন। কিন্তু এখানে সবচেয়ে কষ্টে রয়েছে মধ্যবিত্ত। কারন তাদের সবদিক মাথায় রেখে সবকিছু সাফার করতে হচ্ছে। আর আপনি যদি এদের মধ্যে একজন  হন তাহলে আপনাকে Good Life থেকে Great Life এ যাওয়ার জন্য আপনার ইচ্ছাশক্তিকে বড় করতে হবে। 

আপনার গোল কে সমসময় মনে করুন- 


আপনি যা করতে চান বা হতে চান তা বার বার স্বরণ করুন। মনে করতে থাকুন আপনি কি পেতে চান এবং তা কিভাবে আপনার কাছে আসবে। এমন অভ্যাস গড়ে তুললে আপনার ব্রেইন দ্রুত কাজ করবে, এবং আপনাকে আপনার সেই গোল অর্জন করাতে বাধ্য করবে। 

তাছাড়া অনেক সময়ে শারিরীক কারনেও অলসতার শিকার হয়ে থাকি আমরা। যেমন অনেক্ষন শুয়ে থাকা, কোথাও একভাবে বসে থাকা। এগুলো আমাদের শরীরের সাথে সাথে ব্রেইনকেও দুর্বল করে ফেলে। এবং এর জন্য আমাদের নিজেদের সব সময় কোনো না কোনো কাজে ব্যাস্ত থাকতে হবে।  এসব কিছু বিষয় মাথায় রাখলে এবং মেনে চলতে পারলে আপনার লেজিনেস বা অলসতা দূর করা সম্বব। এবং আপনার এই অলসতা দূর হলে 

Related Articles

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here

আমাদের ফলো করুন

2,258FansLike
1,069FollowersFollow
1,569FollowersFollow
- Advertisement -spot_img

আরোও পড়ুন